Happy Home & Healthcare Prokashoni

বাড়িতেই বানান মাস্ক, নিয়ম মেনে পরুন

Amar ShasthoBD || 2021-04-17 01:42:23

করোনা (কেভিড-১৯) পরিস্থিতিতে দেরিতে হলেও মাস্ক নিয়ে মত বদলেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। বাইরে বের হলে করোনা থেকে বাঁচতে কিছুটা হলেও নিরাপত্তা দেয় মাস্ক। তাই মাস্ক পরুন। কিন্তু বাজারে যে উন্নত মানের মাস্ক নেই। থাকলেও উচ্চমূল্যের কারনে কিনতে পারছেন না। এ অবস্থায় বাড়িতেই বানিয়ে নিন উন্নত মানের মাস্ক। 

উপকরন

নরম কাপড়, টি শার্ট অথবা রুমাল কফি ফিল্টার বা পেপার টাওয়েল কাঁচি রাবার ব্যান্ড সেফটি পিন 

যেভাবে বানাবেন 

টি শার্ট দিয়ে 

সুতির টি শার্ট ব্যবহার করলেই ভালো। তবে লক্ষ রাখবেন, এটি যেন খুব পাতলা না হয়। একে মাস্ককের আদলে ভাজ করুন। ইস্ত্রি করার মতো করে চেপে দিন, যাতে ভাজের দাগটা খুব স্পষ্ট থাকে। 

এমন ভাবে ভাঁজ করুন যেন শার্টেব বগলের নীচের অংশ মাস্কের বটম লাইন হয়। মূখে চাপা দেওয়ার অংশ যেন চওড়া হয়। 

এমন ভাবে টি শার্টটি কাটুন, যেন মাস্কটির দুই স্তর থাকে।

নীচের দিকটি মুড়ে সেফটিপিন দিয়ে নিন ও পেপার টাওয়েল ও কফি ফিল্টার রাখুন এই টি শার্টের দুই স্তরের মাঝে। সেটিকেও সেফটিপিন দিয়ে জুরে নিন।

মাস্কটি যেন যথেষ্ট বড় হয়, অর্থাৎ নাক-মুখ যেন ভালোভাবে ঢাকে, সেদিকে লক্ষ্য রাখুন। 

রুমাল দিয়ে মাস্ক বানান 

রুমাল বা সেই আকারের একটি পরিস্কার কাপড় কোণাকুণি ভাজ করুন। ইস্ত্রির মতো করে চেপে দিন, যাতে ভাজের দাগটা খুব স্পষ্ট থাকে। 

পেপার টাওয়েল বা কফি ফিল্টার রাখুন ওই রুমালের মাঝে। জুড়ে দিন সেফটিপিন দিয়ে। 

রুমালের ধার ঘেষে দুটো রাবার ব্যান্ড রাখুন। প্রতিটার মধ্যে দূরত্ব থাকুক ছয় ইঞ্চি। 

এবার রুমালর বা দিক ও ডান দিকের কোনা মুড়ে মাঝ বরাবর আনুন। ডান দিকের কোনাকে বাঁ দিকের কোণার মধ্যে থাকা কাপড়ের ভাঁজে ঢুকিয়ে দিন। 

এবার বেধে নিলেই তৈরি মাস্ক। 

কাপরের মাস্কের সুবিধা হলো এটা একাধিক বার ব্যবহার করা যাবে। বার বার এসে ভালোকরে সাবান দিয়ে ধুয়ে কড়া রোদে শুকিয়ে নিন। ৭০ শতাংশের বেশি সুরক্ষা দিতে পারে এই মাস্ক। কোনো রকম সেলাই ছাড়াই বানানো যায় এই এটি। 

মাস্ক ব্যবহারের নিয়ম

মাস্ক তৈরি তো করলেন এবার ব্যবহারের নিয়ম যেনে নিন। 

প্রতিবার  ব্যবহারের পর গরম সাবান- পানিতে ধুয়ে জীবানুমুক্ত করে, অন্তত ৫ ঘন্টা শুকিয়ে নিন। 

চাইলে গরম লবন পানিতে ১০ থেকে ১৫ মিনিট ফুটিয়ে নিতে পারেন। 

পরা-খোলার নিয়ম 

মাস্কের উপরের দিকটি আপনার মাথার পেছনের দিকে বেধে নিন। পেছনের দিকটি টেনে বাধুঁন ঘাড়ের দিকে। শক্ত করে বাধুঁন। 

নোংরা হাতে মাস্ক ধরবেন না। সাবানে হাত ধুয়ে মাস্ক পরতে হবে। 

এমনভাবে পরবেন যেন নাক ও মুখ ঢাকা পড়ে। 

মাস্কের উল্টো পিঠ ব্যবহার করা যাবে না।

শুধু আপনার মাস্কই আপনি পরবেন। অন্যের মাস্ক পরা যাবে না। 

না ধুয়ে দু’বার পরা যাবে না। 

মাস্কের সামনে হাত দেবেন না। 

কথা বলার সময় নামিয়ে দেবেন না। কোনো কারনে হাত দিতে গেলে আগে হাত ধুয়ে নেবেন। ধুতে হবে হাত দেয়ার পরেও। 

মাস্ক খোলার সময় প্রথমে পেছনের অংশ খুলবেন। পরে সামনের অংশ। 

তবে নাক-মুখের দিকের অংশে হাত দেবেন না। সরাসরি ধুয়ে ফেলবেন।

Designed & Developed by TechSolutions BD