Happy Home & Healthcare Prokashoni

গ্যাস্ট্রিক দূর করার কৌশল

আইভি খান ওয়াহিদ || 2021-04-17 01:24:36

বিভিন্ন ডাক্তারি ঔষধ থাকেলেও সবসময় গ্যাস্ট্রিক থেকে সম্পূর্ণ মুক্তি পাওয়া যায় না। তাই প্রাকৃতিক উপায়ে এথেকে প্রতিকার পেতে হবে।

  • নারিকেলের পানি গ্যাস্ট্রিকের ব্যথা দূর করে বুকের জ্বালা-পোড়া দূর করতে পারে।
  • ক্যাফেইনজাতীয় সকল পানীয় পরিহার করে সবুজ চা বা ভেষজ পানীয় পান করার অভ্যাস করুন।
  • প্রতিদিন একগ্লাস দুধ অবশ্যই পান করুন।
  • আপনি যদি ধূমপায়ী হয়ে থাকেন, তাহলে অবশ্যই ধূমপান বন্ধ করুন।
  • আপনার খাদ্যতালিকা থেকে ঝাল ও মসলাযুক্ত খাবার ত্যাগ করুন।
  • কিছু সময় পরপর খাবার গ্রহণ করুন এবং কম কম করে খাবেন। অনেক সময় না খেয়ে থাকার ফলে গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা সৃষ্টি হয়।
  • পুদিনাপাতা প্রাকৃতিকভাবে এ সমস্যা দূর করতে পারে। পানিতে পুদিনাপাতা ভাল করে সেদ্ধ করে নিন। প্রতিবার খাওয়ার পর এক গ্লাস পুদিনাপাতার রস পান করুন।
  • বুকে ব্যথা দূর করার জন্য লবঙ্গের ব্যবহার করতে পারেন। একটি লবঙ্গ মুখে দিতেই বুঝতে পারবেন এর কার্যকারিতা।
  • খাদ্যতালিকায় মটরশটি, বাঁধাকপি, গাজর এবং পেঁয়াজ যোগ করুন।
  • রাতে ঘুমাতে যাবার অন্তত ২ থেকে ৩ ঘন্টা আগে রাতের খাবার গ্রহণ করুন।

অ্যাসিডিটির সমস্যা দূর করতে অনেক ধরনের ঔষধ ও কেমিক্যালজাতীয় ইনস্ট্যান্ট পানীয় পাওয়া যায় যার রয়েছে ক্ষতিকর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া। তাই এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে যতোটা সম্ভব প্রাকৃতিক উপায় ব্যবহার করাই ভালো। তাহলে জেনে নিন প্রাকৃতিক উপায়ে দ্রুত এই যন্ত্রণাদায়ক সমস্যা থেকে মুক্তির উপায়, যা করবেন এবং যা করবেন না:-

  • দ্রুত কলা বা আপেল যে কোনো একটি ফল খেয়ে নিন। অ্যাসিডিটি অনেকটাই কমে যাবে।
  • শুয়ে থাকবেন না। থুঁতনি উঁচু করে রাখুন। এতে গ্যাসের সমস্যার কারণে বুকজ্বলা কমে যাবে।
  • তাড়াহুড়ো করে গোগ্রাসে খাবার গিলবেন না। ধীরে সুস্থে খাবার চিবিয়ে খাবেন। গোগ্রাসে গিলে ফেললে খাবার হজম হতে সমস্যা হয় যার কারণে অ্যাসিডিটির সমস্যা শুরু হয়ে যায়।
  • খাবারে যতো অনিয়ম হয় ততো অ্যাসিডিটির সমস্যা বাড়তে থাকে। তাই খাবারের সময়টা একটু নিয়ন্ত্রণে রাখুন। তাৎক্ষণিক সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে প্রাকৃতিক সমাধানগুলো অবলম্বন করতে পারেন যা খুবই সহজলভ্য এবং কার্যকর যেমন:-
  • আদা চা:- যদি খাওয়ার অন্তত ২০ মিনিট আগে এক কাপ আদা চা পান করেন তাহলে খাওয়ার পর একেবারেই বুকজ্বলার সমস্যায় ভুগবেন না। খাওয়ার পর বুকজ্বলা শুরু হয়ে গেলেও আদা চা পান করার ফলে খুব দ্রুত সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।
  • বেশিং সোডা:- বেশিংসোডার সোডিয়াম-বাই-কার্বোনেট অ্যাসিডিটির সমস্যা খুব দ্রুত নিরাময়ে বিশেষভাবে সহায়ক। এর পিএইচ ৭ মাত্রার বেশি হওয়ার কারণে এটি পেটের অ্যসিডকে শান্ত করে জ্বালাপোড়া কমিয়ে দেয়। আধা থেকে ১ চা চামচ বেশিংসোডা ১ গ্লাস পানিতে ভালোকরে গুলিয়ে নিন। বেশিংসোডা এরচাইতে বেশি নেবেন না। প্রয়োজনে এই পদ্ধতি দিনে ২/৩ বার পান করতে পারেন।

Designed & Developed by TechSolutions BD